শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবসে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের আলোচনা সভা ও দোয়া

0
174
#

কুমিল্লা প্রতিনিধি:

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস উপলক্ষে ১১ জুন,(শুক্রবার) কুমিল্লা জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের উদ্যোগে আলোচনা সভা, মিলাদ মাহফিল ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

#

বিকালে কুমিল্লা জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি সাইফ উদ্দিন আহমেদ পাপ্পুর সভাপতিত্বে, সাধারণ সম্পাদক মহসিনুর রহমানের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম এ করিম মজুমদার, দপ্তর সম্পাদক রূপম মজুমদার, সাংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক আশিকুন্নবি বাপ্পি, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক ফরহাদুল মিজান, যুব ক্রীড়া সম্পাদক খালেদ আহমেদ চঞ্চল, উপ দপ্তর সম্পাদক মো: শহীদ উল্লাহ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি কিংকর দেবনাথ, জামাল হোসেন ভূঁইয়া, মনিরুজ্জামান, কাউসার খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক মাহমুদুর রহমান মাসুম, দপ্তর সম্পাদক আরিফুল হাসান খান বাপ্পী, সমাজকল্যাণ সম্পাদক শিপন আহমেদ, আইন বিষয়ক সম্পাদক এডভোকেট আব্দুল আলিম, তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক ইমরান হোসেন জ্যাকি, জেলা সদস্য সাজেদুল করিম বিপু, আরিফুর রহমান মিঠু।
আরো উপস্থিত ছিলেন স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা আমির হোসেন ভূঁইয়া, শাহ আলম লস্কর, মুন্সি রাসেল, নিয়াজ মো: খান, খোরশেদ আলম, গোলাম মোস্তফা রুবেল, শাকিল আহমেদ, কামাল হোসেন, বাহার উদ্দিন, সাইফুল ইসলাম, মামুন প্রমুখ।

নেতৃবৃন্দ’রা ১/১১ সময় শেখ হাসিনার গ্রেফতার ও কারা নির্যাতনের দুঃসহ স্মৃতি বর্ণনা করেন এবং জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ও সাধারণ সম্পাদক সাবেক রেলপথমন্ত্রী মুজিবুল হকের সে সময়ের দৃঢ়তার কথা তুলে ধরেন এবং আগামী দিনে সকল ষড়যন্ত্র উপেক্ষা করে দলের পক্ষে নিবেদিত থাকার অঙ্গিকার ব্যক্ত করেন। মিলাদ ও দোয়া পরিচালনা করে মুনাজাত করেন স্বেচ্ছাসেবকলীগের নেতা কাজী মো: ওয়ালী উল্লাহ।

উল্লেখ্য, আজ শুক্রবার (১১ জুন) আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস। ওয়ান-ইলেভেনের সরকারের সময় তিনি দীর্ঘ ১১ মাস কারাভোগের পর ২০০৮ সালের এদিনে সংসদ ভবন চত্বরে স্থাপিত বিশেষ কারাগার থেকে মুক্তি পান। সেনাসমর্থিত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় ২০০৭ সালের ১৬ জুলাই সুধা সদনের বাসভবন থেকে গ্রেফতার হয়েছিলেন তৎকালীন সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা শেখ হাসিনা। বন্দি থাকা অবস্থায় কারা অভ্যন্তরে শেখ হাসিনা অসুস্থ হয়ে পড়লর ওই সময় বিদেশে চিকিৎসার জন্য তাকে মুক্তি দেয়ার দাবি ওঠে বিভিন্ন মহল থেকে।
আওয়ামী লীগসহ অন্যান্য অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের ক্রমাগত চাপ, আপসহীন মনোভাব ও অনড় দাবির মুখে তৎকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার শেখ হাসিনাকে মুক্তি দিতে বাধ্য হয়।

২০০৮ সালে কারামুক্ত হওয়ার পরের বছর থেকেই শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস হিসেবে পালন করে আসছে আওয়ামী লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনগুলো। এ বছর বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস স্বাস্থ্যবিধি মেনে পালন করে বিভিন্ন সংগঠন।

Facebook Comments

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here